Thursday , December 14 2017
Home / জাতীয় / এই ছবিটি নিয়ে দেশজুড়ে চলছে আলোচনা

এই ছবিটি নিয়ে দেশজুড়ে চলছে আলোচনা

Loading...

একবার একটি বাড়ির পেছন দিয়ে একজন পুলিশ হেঁটে যাচ্ছিলেন। ঘরের ভেতর থেকে এক বাবা তার সন্তানকে বললেন- ‘দেখ্‌ তো- বাড়ির পেছন দিয়ে কোন লোক হেঁটে যায়?’ সন্তান দেখে এসে উত্তর দিলো- ‘আব্বা, মানুষ না, পুলিশ যায়’।

অর্থাৎ পুলিশকে মানুষের শ্রেণি থেকে পৃথক করে দিয়েছিল সন্তানটি। আজও বাংলাদেশের অনেক মানুষ আছেন, যারা নিরপরাধী হয়েও- ‘পুলিশ’ নাম শুনলেই আতঙ্কিত হয়ে ওঠেন। এর কারণ আর নতুন করে বলার কিছুই নেই। তাই বলে কী গোটা পুলিশ বাহিনীই মন্দ? না, হাতে গোনা দুই একজনের জন্য বাকি সবার বদনাম হয়।

শুধু পুলিশ সেক্টর কেন, সব সেক্টরেই রয়েছে ভালো মন্দ। এই যে উপরের ছবিটায় হাঁটু পানিতে দাঁড়িয়েও একজন ট্রাফিক পুলিশ যে নিজের কর্তব্য ঠিকভাবে পালন করে যাচ্ছেন- তাঁকে কি আমরা মন্দ পুলিশের শ্রেণিতে ফেলতে পারি? না, ফেলতে পারি না।

দৃশ্যটি চট্টগ্রামের বড়পোল নামক একটি জায়গায়। ভারি বর্ষণে পানি জমে গিয়েছে সড়কে। সেই সরকের উপর দাঁড়িয়ে কর্তব্য পালন করছেন একজন পুলিশ। এমন মানবিক একটি দৃশ্যকে তৎক্ষণাৎ ক্যামেরা বন্দী করেছেন আল নাসিম তালুকদার রাজীব নামক একজন।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) এর ফেসবুক পেজে মাত্র ৪ ঘণ্টা আগে আপ করা হয়েছে ছবিটি। ইতোমধ্যে ৪১৬ বার শেয়ার হয়ে এই ছবিটি বর্তমানে ফেসবুকে ভাইরাল। পোস্টের নিচে পাওয়া গিয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া। কেউ একে সাধুবাদ জানিয়েছেন, কেউ বা বলেছেন- এতে সাধাবুদ জানানোর কিছুই নেই, কারণ- জলাবদ্ধতার অন্যতম কারণ হিসেবে তারা যথাযথ কর্তৃপক্ষের দায়িত্বহীনতাকে দোষারোপ করেছেন।

কেউ কেউ আবার মতামত দিয়েছেন- পুলিশের এমন সদাচরণ মাঝে মাঝে দেখা যায়, কিন্তু তার চেয়ে বেশি দেখা যায় অসদাচরণ। অনেকে মতামত দিয়েছেন- অল্পসংখ্যক পুলিশের কারণে গোটা পুলিশ বাহিনীকে দোষারোপ করা অনুচিত। যা হোক, সব মিলিয়ে বর্তমানে এই ছবিটিই ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে রয়েছে। -প্রিয়

Loading...
Loading...

Check Also

প্রধানমন্ত্রী কাঁদলেন এবং কাঁদালেন

Loading... মা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের স্মৃতিচারণ করে কাঁদলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বেগম রোকেয়া পদক প্রদান …